প্রতিপক্ষ সিলেট বলেই উজ্জীবিত টাইটানসের রাহী

তরুণ পেসার আবু জায়েদ চৌধুরী রাহীর বাড়ি সিলেট শহরে, কিন্তু বিপিএলের কোনও আসরেই সিলেটের হয়ে তার খেলা হয়নি। গতবার ঢাকা ডায়নামাইটসের হয়ে খেলা রাহীর এবারের ঠিকানা খুলনা টাইটানস। বুধবার তাই সিলেট সিক্সার্সের বিপক্ষে মাঠে নামতে হবে তাকে। আর প্রতিপক্ষ সিলেট বলেই বল হাতে জ্বলে উঠতে তিনি মরিয়া।

মঙ্গলবার সিলেট জেলা স্টেডিয়ামে অনুশীলন শেষে রাহী বলেছেন, ‘নিজের শহরের বিপক্ষে খেলবো, তবে তাতে কোনও সমস্যা নেই। আমরা পেশাদার ক্রিকেটার। আমার অবশ্য সিলেটের বিপক্ষে খেলতেই বেশি ভালো লাগে, মনের মধ্যে জেদ কাজ করে।’

‘অবহেলা’র কারণে এমন জেদ কিনা প্রশ্নে মুচকি হেসে রাহীর উত্তর, ‘অনেকটা তেমনই! সিলেটের বিপক্ষে খেলতে নামলেই আমার মধ্যে অন্যরকম উত্তেজনা কাজ করে। কালকেও উত্তেজনা কাজ করবে।’

বিপিএলে বল হাতে আগুন ঝরাতে অনুশীলনে ব্যস্ত রাহী

ঢাকা ডায়নামাইটসের বিপক্ষে খুলনা হেরে গেলেও রাহীর পারফরম্যান্স ছিল ভালোই, চার ওভারে ২৯ রানের বিনিময়ে নিয়েছিলেন দুই উইকেট। প্রথম ম্যাচের পারফরম্যান্স পুরো টুর্নামেন্টে ধরে রাখার প্রতিজ্ঞা তার কণ্ঠে, ‘প্রথম ম্যাচে বোলিং ভালো হয়েছে, চেষ্টা করবো এই পারফরম্যান্স ধরে রাখতে। খুলনা টাইটানস অনেক আশা করে আমাকে নিয়েছে। দলের প্রত্যাশা পূরণের চেষ্টা করবো।’

টুর্নামেন্টে শুরুটা ভালো না হলেও দ্বিতীয় ম্যাচে ঘুরে দাঁড়াতে প্রত্যয়ী রাহী, ‘প্রথম ম্যাচ হেরে গেলেও আমাদের মনোবল অটুট আছে। প্রথম ম্যাচে অনেক কিছুই পক্ষে থাকে না। আশা করি, পরের ম্যাচে ঘুরে দাঁড়িয়ে ভক্তদের ভালো খেলা উপহার দিতে পারবো।’

প্রথম ম্যাচ শেষে দলের ব্যাটিং নিয়ে উদ্বেগ প্রকাশ করেছেন খুলনার অধিনায়ক মাহমুদউল্লাহ। তবে রাহী পরের ম্যাচেই ব্যাটসম্যানদের সাফল্যের ব্যাপারে আশাবাদী, ‘নেটে বোলিং করে বুঝতে পেরেছি, আমাদের ব্যাটিং লাইনআপ দারুণ শক্তিশালী। প্রথম ম্যাচে টার্গেট বড় ছিল বলে ব্যাটসম্যানরা হয়তো একটু নার্ভাস ছিল। পরের ম্যাচেই সব ঠিক হয়ে যাবে।’

আরও দেখুন

সম্পর্কিত খবর